সাইটম্যাপ

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব

আস-সালামু আলাইকুম ভাইয়া,

সকল প্রশংসা আল্লাহ’র জন্য, শান্তি অবতীর্ণ হোক মুহাম্মাদ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) এর প্রতি। পরম করুণাময়-দয়াশীল আল্লাহ’র নামে শুরু করছি।

তুমি যে প্রশ্নটা করেছ তা বহু পুরনো। এ ব্যাপারটা একসময় আমার কাছেও অস্বস্তিকর মনে হয়েছিল যে একটা মানুষ শুধু ইহুদী বা খ্রিষ্টান বা অমুসলিম হবার কারণে অনন্তকাল নরকের আগুনে পুড়ে শাস্তি পাবে তা কিভাবে হয়? তার চেয়েও অনেক দুষ্ট কোন মানুষ মুসলিমের ঘরে জন্মগ্রহণ করার কারণে সব কিছুতে পার পেয়ে যাবে – এটা কি সুবিচার? এর উত্তরটা হয়ত খুব